নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি ও রেজিস্ট্রেশন অফার

বর্তমান সময়ে মোবাইল ব্যাংকিং একটি প্রয়োজনীয় সেবা। বাংলাদেশের বেশ কয়েকটি মোবাইল ব্যাংকিং সেবা রয়েছে এর মধ্যে নগদ একটি। আমরা জানি নগদ বাংলাদেশ ডাক বিভাগের একটি ডিজিটাল সেবা। নগদ এর মাধ্যমে আমরা খুব সহজে টাকা আদান প্রদান করতে পারি অথবা আমাদের প্রয়োজনের মুহূর্তে মোবাইলে রিচার্জ করতে পারি। এজন্য বাংলাদেশের অনেক লোকজন নগদ ব্যবহার করতে ইচ্ছুক। কিন্তু অনেকেই নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি সম্পর্কে জানেনা। এজন্য তারা ইন্টারনেটে নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি সম্পর্কে জানতে চেয়েছেন।

আপনি যদি নগদ একাউন্ট কিভাবে খুলতে হয় এই নিয়মটি জানতে চান তাহলে মনোযোগ সহকারে সম্পন্ন পোস্টটি পড়ার অনুরোধ রইল। আজকের এই পোস্টে আমরা আপনাদের সাথে নগদ একাউন্ট খোলার নিয়ম এবং নতুন একাউন্ট খোলার কিছু নতুন নতুন অফার রয়েছে এ সম্পর্কে জানানোর চেষ্টা করব।

নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি

আপনি যদি নগদ একাউন্ট খুলতে আগ্রহী হয়ে থাকেন কিন্তু নগদ একাউন্ট কিভাবে খুলতে হয়, এটি আপনার জানা না থাকে তাহলে আপনি এই পোস্ট থেকে সম্পূর্ণ ধারণা পেতে পারেন।  এই অংশে আমরা জানব কিভাবে খুব সহজে ঘরে বসে আপনি নগদ একাউন্ট খুলতে পারেন।

নগদ একাউন্ট আপনি চাইলে দুই ভাবে খুলতে পারবেন। একটি হচ্ছে নগদ এজেন্ট পয়েন্টে গিয়ে  এবং আরেকটি হচ্ছে আপনার নিজস্ব স্মার্টফোন থেকে। বর্তমান সময়ে সকলেই ঘরে বসে তাদের স্মার্টফোনের মাধ্যমে অল্প সময়ের মধ্যে নগদ একাউন্ট খুলতে পারে। নিচের অংশ থেকে নিয়ম গুলো জেনে নিন। 

এজেন্ট পয়েন্ট থেকে নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতিঃ

এজেন্ট পয়েন্ট থেকে নগদ একাউন্ট খুলতে হলে আপনাকে অবশ্যই কিছু গুরুত্বপূর্ণ তথ্য প্রদান করতে হবে।  অবশ্যই আপনার একটি সচল মোবাইল নাম্বার এবং ন্যাশনাল আইডি কার্ড নাম্বার লাগবে।  এখন নিচের ধাপগুলো অনুসরণ করে আপনার মোবাইল থেকে নগদ একাউন্ট খুলুন।

আপনার মোবাইলের ডায়ালিং অপশনে গিয়ে

১. *১৬৭# ডায়াল করুন

২. প্রযোজ্য শর্তাবলি পড়ে ও সম্মতি জানিয়ে ৪ ডিজিটের পিন সেট করুন

৩. পুনরায় পিন টাইপ করে কনফার্ম করুন (গোপন পিনটি কাউকে বলবেন না)

৪.  এরপর মুনাফা পেতে চান কিনা বেছে নিন

ব্যস হয়ে গেলো আপনার প্রাথমিক ‘নগদ’ একাউন্ট। এ পর্যায়ে আপনাকে আপনার ন্যাশনাল আইডি কার্ডের ফটোকপি এবং আপনার একটি রঙিন ছবি নিয়ে আপনার নিকটস্থ যেকোনো নগদ এজেন্ট পয়েন্টে গিয়ে একটি ফরম পূরণ সহ তথ্যগুলো জমা দিয়ে আসবেন। ব্যাস আপনার কাজ শেষ 24 ঘন্টার মধ্যে আপনার নগদ একাউন্ট একটিভ হয়ে যাবে।

স্মার্টফোন থেকে নগদ একাউন্ট খোলার নিয়মঃ

বর্তমান যুগ ডিজিটাল যুগ। সবার হাতে হাতে এখন স্মার্টফোন রয়েছে। আপনি চাইলে এই স্মার্ট ফোন ব্যবহার করে আপনি কোন রকম ঝামেলা ছাড়াই নিজেই ঘরে বসে নগদ একাউন্ট খুলতে পারবেন। সর্বপ্রথম আপনাকে গুগল প্লে স্টোর থেকে নগদ এর অ্যাপস টি ডাউনলোড করুন। তারপর অ্যাপসটি ইন্সটল করে সেটি ওপেন করুন। অ্যাপস টি ওপেন করলে সেখানে একটি রেজিস্ট্রেশন করুন নামে অপশন পাবেন। সেখানে ক্লিক করে আপনার সকল মোবাইল নাম্বারটি প্রবেশ করেন। কিছুক্ষণের মধ্যেই আপনার মোবাইল নাম্বারে একটি ৪ ডিজিটের ওটিপি পাঠানো হবে। দয়াকরে ওটিপি এবং আপনার চার ডিজিটের গোপন পিন নাম্বারটি ইনপুট করে সাবমিট করুন। আপনাকে কে ওয়াই সি সাবমিট করতে হবে মানে হচ্ছে আপনাকে অবশ্যই কিছু ডকুমেন্ট প্রদান করতে হবে যদি আপনি নগদ একাউন্ট সচল রাখতে চান। সর্বপ্রথম আপনার ন্যাশনাল আইডি কার্ডের সামনের অংশের ছবি তুলে সাবমিট করুন। এরপর পর্যায়ক্রমে ন্যাশনাল আইডি কার্ডের পিছনের অংশটি সাবমিট করুন। সবকিছু ঠিক থাকলে আপনার অ্যাকাউন্টটি প্রসেসিং হবে এবং আপনাকে তৎক্ষণাৎ একটি ছবি তুলতে বলবে। ছবি তোলা হয়ে গেলে আপনাকে অবশ্যই নগদ এর শর্তাবলী মেনে একটি সিগনেচার করতে হবে। ব্যাস আপনার কাজ শেষ আপনার নগদ একাউন্টে একটি হওয়ার জন্য 24 ঘন্টা সময় লাগবে। 24 ঘন্টা পরেই আপনি অ্যাকাউন্ট থেকে যেকোনো কিছু করতে পারবেন।

নগদ রেজিস্ট্রেশন অফার

নতুন নতুন যেকোনো অ্যাকাউন্ট খুললেই কিছু-না-কিছু অফার পাওয়া যায়। ঠিক তেমনি নগদে ও এরকম একটি অফার রয়েছে। কোন নগর গ্রাহক যদি নতুন করে নগদ রেজিস্ট্রেশন করে তাহলে সেই গ্রাহক নগদ থেকে কিছু অফার পেতে পারেন। এখন আমরা নগদ রেজিস্ট্রেশন অফার সম্পর্কে সকল বিস্তারিত তথ্য জানবো। দয়া করে সম্পূর্ণ পোস্টটি পড়ুন।
‘নগদ’ একাউন্ট খুললেই পাচ্ছেন ‘নগদ’ অ্যাপ থেকে ২০ টাকা রিচার্জে ২০ টাকা রিচার্জ বোনাস (প্ৰতি মাসে ২ বার)।

  • এই ক্যাম্পেইনে অংশগ্রহণ এবং অতিরিক্ত ২০ টাকা রিচার্জ বোনাস পেতে হলে ‘নগদ’ গ্রাহকগণকে তাদের নিজের মোবাইল নাম্বারে ‘নগদ’ অ্যাপ থেকে ২০ টাকা রিচার্জ করতে হবে।
  • গ্রাহকদের ‘নগদ’ একাউন্টের পিনটি সেট করতে হবে এবং ‘নগদ’ একাউন্টটি ফুল প্রোফাইল হতে হবে।
  • সফলভাবে একাউন্ট রেজিস্ট্রেশান ও পিন সেট আপ করে গ্রাহক তার একাউন্টটি আপগ্রেড করে সেলফ রিচার্জ করার ৭২ ঘণ্টার মধ্যে ২০ টাকা রিচার্জ বোনাস পাবেন।
  • রেজিস্ট্রেশনের সময়সীমাঃ  ৫ ফেব্রুয়ারি ২০২১ থেকে ৩১  মার্চ, ২০২১; শুধু যে সকল গ্রাহক এই সময়ের মধ্যে ‘নগদ’ একাউন্ট চালু করবে তারা এই রিচার্জের  উপর বোনাস অফারটিতে অংশগ্রহণ করতে পারবেন

শেষ কথা

আজকের সম্পূর্ণ পোস্ট টি পড়ার জন্য ধন্যবাদ। এই পোস্টে আমরা আপনাদের সাথে নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি এবং নতুন একাউন্টের কিছু অফার সম্পর্কে জানানোর চেষ্টা করেছি। আশা করি এই পোস্ট হতে আপনি নগদ একাউন্ট খোলার পদ্ধতি ও রেজিস্ট্রেশন অফার সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে পেরেছেন। সুতরাং আপনার যদি এই পোস্টটি ভালো লেগে থাকে তাহলে দয়া করে সকলের সাথে শেয়ার করার অনুরোধ রইল।

আরও দেখুনঃ

নগদ কাস্টমার কেয়ার নাম্বার, যোগাযোগের ঠিকানা ও ইমেইল

শিওর ক্যাশ একাউন্ট খোলার নিয়ম [Sure Cash Account Opening]

শিওর ক্যাশ টাকা তোলার নিয়ম জানুন [Surecash Cash Out]

শিওর ক্যাশ পিন ভুলে গেলে করনীয় কি?

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: