২৫ শে মার্চ কাল রাতের কবিতা। গণহত্যা দিবস কবিতা

আজকের এই পোস্টে আপনাদের কে স্বাগতম। আজকের এই পোস্টে আপনাদের সাথে ২৫ শে মার্চ কাল রাতের কবিতা ও কিছু কথা নিয়ে হাজির হয়েছি। অনেকে আছেন যারা গুগলে ২৫ শে মার্চ কাল রাতের কবিতা নিয়ে ভালো একটি পোস্ট খুজতেছেন। তাই আপনারা যদি ২৫ শে মার্চ এর ভালো ভালো কবিতা গুলো পেতে চান তাহলে আমাদের এই পোস্ট টি সম্পূর্ণ পড়ুন।

আজকের এই পোস্টে ইতিহাসিক ২৫ শে মার্চ  এর ভাষণ ও কাল রাতের কবিতা দেওয়া আছে। তাই আপনারা এই ২৫ মার্চের ইতিহাসিক দিন টি সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে এই পোস্ট টি মনোযোগ সহকারে পড়ুন। তো চলুন জেনে নেওয়া যাক সেই ইতিহাসিক দিন সম্পর্কে।

২৫ শে মার্চ কাল রাতের ইতিহাস ও কিছু কথা

বাঙ্গালি জাতির এই বাংলাদেশের ইতিহাসিক দিন গুলোর মধ্যে অন্যতম হছে ২৫ শে মার্চ। এই রাত কে বাংলাদেশের কাল রাত নামে পরিচিত। বাঙ্গালি জাতিদের কে ধ্বংস করার উপলক্ষে ২৫ শে মার্চের রাতে পাকিস্তানি সেনারা ঘুমন্ত মানুষের উপরে হত্যাযগ্য চালায়। সে রাতে রাজারবাগ পুলিশ লাইন, ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় সহ বিভিন্ন জায়গায় পাকিস্তানি সেনা বাহিনী বাঙ্গালাদের উপর হত্যাযজ্ঞ চালায়।

এই হত্যাযজ্ঞে অনেক বাঙ্গালি শহিদ হন। রক্তে রঞ্জিত হয়ে যায় ঢাকার বিভিন্ন এলাকা। এই ২৫ মার্চ রাতেই বাংলাদেশে আনুমানিক প্রায় একলাখ মানুষকে হত্যা করা হয়েছিল। এই ২৫ শে মার্চ রাতে ধানমণ্ডির ৩২ নম্বর বাড়ি থেকে গ্রেপ্তার করা হয় বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানকে। এজন্য এই ২৫ শে মার্চ রাতকে বাঙালিজাতিদের জন্য কাল রাত হিসেবে আখ্যায়িত করা হয়।

২৫ মার্চ গণহত্যা দিবস
————————————–
জাফর সেলিম
“কাল রাত্রীর কালো-শত্রুর
কালো কাহিনী।
একাত্তরের ২৫শে মার্চ
সবাই সেটা জানি।
নিরীহ আর নিরস্ত্র
বাঙালীর উপর।
গুলি বোমা ছুঁড়েছিলো
পাকিস্তানী বর্বর।
নির্মমতার ইতিহাসে
ওই দিনটি আজ গণহত্যা দিবস।
জানাতে চাই বিশ্বকে ফের
ভয়ংকর রাত কতো ‘কালো-নিকশ’।”

২৫ শে মার্চ কাল রাতের কবিতা

আজকের এই ২৫ শে মার্চ এর অনেক কবিতা আছে। আজকের এই পোস্টে আমি আপনাদের মধ্যে সেই কবিতা গুলো থেকে ভালো কিছু ২৫ শে মার্চ কাল রাতের কবিতা দিয়েছি। আশা করছি এই কবিতা গুলো আপনাদের ভালো লাগবে। এই কবিতা গুলো আপনি চাইলে আপনাদের বন্ধু-বান্ধব বা আপনাদের প্রিয়জনদের মাঝে ২৫ শে মার্চ উপলক্ষে শেয়ার করে দিতে পারবেন। নিচে থেকে কবিতা গুলো দেখেনিন।

২৫ শে মার্চ কালো রাত
চারদিকে চিৎকার আর আর্তনাদ
লাশের স্থুপ,আর উত্তেজিত
পৈশাচিক হানাদার,
২৫শে মার্চ কালো রাত।

ঘুমন্ত বাঙ্গালীর প্রান কেড়ে নেই
পাকিস্তানি হানাদার
মানুষ খেকু শাশক গোষ্ঠি
পাকিস্তানি সৈরাচার,
২৫শে মার্চ কালো রাত।

বেঈমান আল বদর,আল সামস্,রাজাকার
জাতিকে দিয়েছিল উপহার
রক্তপিপাশু জানোয়ার,
২৫শে মার্চ কালো রাত।

গ্রামগন্জ্ঞ আর লোকালয়,
পুড়ে হচ্ছে চারখার
দাউ দাউ পুড়ে যাচ্ছে দোকানপাট,
লোহা লঙ্করের স্তুপ আর কাঠ
২৫শে মার্চ কালো রাত।

হরন করেছে মা বোনের ইজ্জত
অত্যাচারী পাকিস্তান,
তবুও থামেনি অত্যাচারী,
মানু্ষ খেকু পাকিস্তান
২৫শে মার্চ কালো রাত।

জাতি পঙ্গু করে দেয়
পাকিস্তানি সরকার
২৫শে মার্চ কালো রাত।

চারদিকে চিৎকার আর আর্তনাদ
লাশের স্তুপ আর উত্তেজিত
পৈশাচিক হানাদার
২৫শে মার্চ কালো রাত।

২৫ মার্চ নিয়ে কবিতা

২৫ মার্চ ১৯৭১

– মোহাম্মাদ ফরিদ উদ্দিন

২৫ মার্চ ১৯৭১

(অসংখ্য শহীদের প্রতি শ্রদ্ধা রেখে, যারা স্বাধীনতার জন্য যুদ্ধ করেছিল এবং তা রক্ষার জন্য যুদ্ধ করেছিল ও করছে! )
মোহাম্মাদ ফরিদ উদ্দিন

এইদিনটায় শুরু হল,
জীবনকে মুক্ত করার
দেশকে জীবনের সাথে যুক্ত করার সংগ্রাম,
জীবন দিয়েছে দেশ, গড়েছেও সে,
এবার তুমি তার স্বাধীনতা রক্ষা করো।

একবার যদি তুমি ভাবতে এমন,
পরাধীনতা কেমন,
কেমন করে জীবনের শেষ হয়,
জীবন কোন জীবন নয় পরাধীনতায়,
তুমি স্বাধীন দেশ পেয়েছ,
স্বাধীন ভাবে আকাশের নিচে
নিজের দেশকে কাছে পেয়েছ,
বুলেট আর গ্রেনেডের সামনে দাড়িয়ে
বলতে হয়নি, ‘আমি স্বাধীনতা চাই’,
একটাই প্রান দিয়ে দিতে হয়নি দেশের তরে,
স্বাধীনতা এসেছে অনেক জীবনেকে শুন্য করে,
অনেক বোবা কান্নায়, অনেক কিছু বিসর্জনে,
সব শহীদেরা তোমাকে স্বাধীনতা দিয়েছে,
এবার তুমি তাঁদের শান্তিতে ঘুমাতে দাও স্বাধীন প্রাঙ্গনে।

তুমি যদি বলতে না পার তুমি কে
তবে তোমার স্বাধীনতা ফিরিয়ে দাও,
তুমি যদি বুঝতে না পার যুদ্ধ কি
তবে তোমার জীবন রেখে আস স্মৃতি সৌধে,
তুমি যদি দেশের পক্ষে কিছু না বলতে পার
চলে যাও অন্য কোথাও এ দেশ ছেড়ে,
আমার হৃদয় লক্ষভেদি বুলেট আর গ্রেনেডের মত
যেকোনো সময় বেড়িয়ে আসতে পারে,
আমি হায়ানার কামড়ে ভয় করিনা,
বিজয়ের পতাকা উড়িয়েছে শহীদেরা
আমি তা কোন দিন হারাতে দিব না,
এটায় আমার যুদ্ধ, শ্রদ্ধা সেটা শহীদের তরে
তাঁদের এই অমূল্য ঋণ, বিজয়ের কথা, আমি ভুলে যাই কি করে…

২৫ মার্চ গণহত্যা নিয়ে কবিতা

গণহত্যা
– ফাইয়াজ ইসলাম ফাহিম
বাঙালি জাতীকে মুছে ফেলতে পাক- হানাদার
পঁচিশে মার্চ চালায় পূর্ব পাকিস্তানে গণহত্যা,
বাঙলা মায়ের মুখের ভাষা কেড়ে নিয়ে
স্থাপন করতে চেয়েছিলো পাক স্বত্বা।
.
বাঙলা জাতি হুঙ্কার দিয়ে উঠে
বঙ্গ পিতা শেখ মুজিবের কথা শুনে,
নতুন দেশ, নিজের ভাষা ফিরে পেতে
মুজিবের স্বপ্ন বোনে।
.
মুজিব বঙ্গ দেশের জ্যোতির্ময়
সূর্য হয়ে দাঁড়ায়,
পাক বাহিনীর নেতা হিয়াহিয়ার
মন ক্ষরতাপে পোড়ায়।
.
মুজিবীয় চেতনা গণহত্যার বুকে চালায় ছুঁড়ি
নতুন আঙ্গিকে জেগে উঠে বাঙালি
পাক বাহিনীদের তুরি মেরে দেয় উড়ি।
.
পাক বাহিনী চেয়েছিলো বাঙালী জাতিকে করতে নাশ
মুজিব বঙ্গ দেশের মানুষের মনে
বেঁচে থাকার আশা করে চাষ,
পাক বাহিনীর আশা আকাঙ্ক্ষা হয়ে যায় ম্লান
হিয়াহিয়া সরকার হতাশ হয় নষ্ট যে তার প্লান।

২৫ মার্চ ১৯৭১ কালো রাতের ছবি

২৫ মার্চ গণহত্যার সাংকেতিক নাম কি ছিল

পাকিস্তানি সেনাবাহিনী ১৯৭১ সালের ২৫শে মার্চ রাতের ওই সেনা অভিযানের সাংকেতিক নাম বা কোডনেম দিয়েছিল ‘অপারেশন সার্চলাইট’

২৫ মার্চ রাতে বঙ্গবন্ধুকে গ্রেফতার করে কোথায় নিয়ে যাওয়া হয়

১৯৭১ সালের ২৬ মার্চ রাতে বঙ্গবন্ধুকে তার ধানমন্ডির নিজ বাসা গ্রেফতার করে পাকিস্তানি সেনাবাহিনীর একটি দল। পরে বঙ্গবন্ধুকে গ্রেফতার করে ঢাকা সেনানিবাসে নেওয়া হয়। সেখান থেকে তিনদিন পর বন্দি অবস্থায় পাকিস্তানে নিয়ে যাওযা হয়।

শেষ কথা

আজকের মত এখানেই শেষ। আশা করছি এই পোস্ট টি আপনাদের ভালো লেগেছে এবং আপনারা ২৫ শে মার্চ কাল রাতের কবিতা গুলো দেখতে পেরেছেন। এই পোস্ট টি ভালোলেগেথাকলে অন্যদের মাঝে শেয়ার করে দিতে পারেন। যে কোনো সমস্যার সমাধান পেতে আমাদের এই ওয়েবসাইট টি ভিজিট করতে পারেন। সেখানে বিভিন্ন সমস্যার সমাধান নিয়ে অনেক পোস্ট আছে। আমাদের সাথে শেষ পর্যন্ত থাকার জন্য আপনাকে অনেক অনেক ধন্যবাদ।

আরও দেখুনঃ

২৬ মার্চ কি দিবস? স্বাধীনতা দিবস কেন পালন করা হয়, ইতিহাস

২১ শে ফেব্রুয়ারী নিয়ে কিছু কথা, কবিতা, মেসেজ, ফেসবুক স্ট্যাটাস

২১ শে ফেব্রুয়ারি নিয়ে রচনা এবং আন্তর্জাতিক মাতৃভাষা দিবসে

২১ শে ফেব্রুয়ারীর ভাষণ ও বক্তব্য এবং কিছু কথা

Leave a Reply

Your email address will not be published.

%d bloggers like this: